ঢাকাবৃহস্পতিবার , ১৯ অক্টোবর ২০২৩
  • অন্যান্য
  1. আইন
  2. ইতিহাস
  3. ইসলামী সঙ্গীতের লিরিক্স
  4. কবিতা
  5. কিংবদন্তী কবিদের কবিতা
  6. ক্যাম্পাস
  7. খেলাধুলা
  8. গল্প
  9. চিঠিপত্র
  10. জনপ্রিয় বাংলা গানের লিরিক্স
  11. তারুণ্যের কথা
  12. ধর্ম
  13. প্রবন্ধ
  14. প্রযুক্তি
  15. ফিচার

আপনজন

মৃধা প্রকাশনী
অক্টোবর ১৯, ২০২৩ ৫:১৯ অপরাহ্ণ
Link Copied!

 

অন্ধকার নেমে এসেছে শহরে,নিয়ন বাতির আলোয় আলোকিত হয়েছে রাস্তার মোড়ের দোকানগুলো।আকাশের গুম মেরে থাকা ঘুমোট অবস্থা আর চারদিকের ভ্যাপসা গরম ইঙ্গিত দিচ্ছে কিছুক্ষণের মাঝেই শহর জুড়ে বৃষ্টি নেমে এলোমেলো করে দেবে সাজানো সব নিয়ম।চায়ের কাপে চুমুক দিতে দিতে এসব কথাই ভাবছে মাহিম,এরপর ঝমঝম করে বৃষ্টি নামলো।যে যার মতো নিজ নীরে ফিরতে দৌড়াদৌড়ি করছে।মাহিমের ফেরার তাড়া নেই বলে আশেপাশে তাকিয়ে মানুষের ছোটাছুটি দেখছে আর ফিরবেই বা কোথায়?এ শহরে তার তো একটা নীর বলতে নেই।মানুষকে কি অদ্ভুত ভাবেই বাহিরে প্রতিকূলতা থেকে নিজেকে রক্ষা করতে নীরে ফিরে যায়।আর যাদের সেই নীর নেই তারা মাহিমের মত সমস্ত প্রতিকূলতা গায়ে মাখায় কাকভেজা হয়ে ঘুরে।বিশ্ববিদ্যালয়ে পড়াশোনা করতে মাহিম বাসা ছেড়ে ঢাকায় এসেছে এই দুই মাস আগেই,এরই মধ্যে শহরের যান্ত্রিকতায় হাঁপিয়ে উঠেছে সে, মাঝে মাঝে দম বন্ধ অবস্থায় মাহিম ফিরে যেতে চায় তার ছেড়ে আসা জীবনে,যে জীবনটা ছিল রূপকথার মতো।বৃষ্টি থামার কোনো লক্ষণ না দেখে মাহিম বৃষ্টির মধ্যেই হলে ফেরার জন্য উদ্যত হল।তার গায়ে এসে বিঁধে যাচ্ছে শত সহস্র পানির কণা। অথচ এই বৃষ্টি তার শরীর থেকে সমস্ত ক্লান্তি ধুয়ে দিচ্ছে না,এই বৃষ্টি তাকে আনন্দচ্ছল করে তুলছে না,এই বৃষ্টি তার বেদনা রেখা প্রশমিত করতে পারছে না,এই বৃষ্টি শুধু শরীর ভেজায়,হৃদয় ছুঁয়ে যাওয়ার সক্ষমতা নেই।দুমাস পরেও এই শহরটা মাহিমের কাছে যেমন আপন হতে পারিনি, শহরের মানুষগুলো যেমন কাছে হতে পারেনি ঠিক তেমনি এ শহরের বৃষ্টি ও তাকে ছুঁয়ে যেতে পারেনি।হলে ফিরে মাহিম আপনজন হীন এই নিষ্ঠুর শহরে কোনরকম নিশ্বাস চালিয়ে নেওয়ার জন্য কিছু খাবার খেয়ে শুয়ে পড়ে।কালকে আবার ক্লাস হচ্ছে, ক্লাস মানে আরেকটা ভয়ংকর অনুভূতি!গান কিংবা আড্ডার আসর কোনো জায়গায় নিজেকে মানানসই মনে হয় না তার। তাই ক্লাসে অন্যান্য সহপাঠীদের ভিড়ে কি ভয়ংকর ভাবে একা হয়ে যায় সে!ক্লাস শুরু হওয়ার দুমাস হলেও এখনো কোনো বন্ধু বানাতে পারেনি অন্তর্মুখী স্বভাবের মাহিম।মানিয়ে নিতে পারেনি এই শহরের চালচলনের সাথে।তাই সে কথা বলে ক্লাসের খালি পড়ে থাকা বেঞ্চের সাথে,তাকে তার পরিবার এবং ফেলে আসা বন্ধুদের গল্প বলে,তার বিষন্নতায় ভরা নিঃসঙ্গতার গল্প শোনায়,এ শহরের বৃষ্টিটাও কেমন পর পর লাগে তার সেই অনুভূতির আখ্যান শোনায়।অদ্ভুতভাবে বেঞ্চটাও তার কথা মনোযোগ দিয়ে শোনে,কারণ দিনশেষে তারা উভয়েই অবহেলিত, পরিত্যক্ত এবং নিঃসঙ্গ।এ শহরের কোনো মানুষ এখনো তার আপন হতে না পারলে কি হবে ক্লাসের খালি বেঞ্চটা যে তার আপনজন হয়েছে সেটা ভেবেই মনে মনে হাসতে থাকে মাহিম।

সাদিয়া সৌমিতা
ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়

Please follow and like us:

Social media & sharing icons powered by UltimatelySocial